সংযুক্ত আরব আমিরাতে দুবাইয়ের হাসপাতালে পড়ে আছে বাংলাদেশের মনির খোঁজ নিচ্ছে না ভারতীয় মালিক

মাদারীপুর শিবচরের উৎরাইল গ্রামে বাড়ি মনির খানের। ১৪ বছর আগে সংসারের অভাব ঘোচাতে পাড়ি জমান উপসাগরীয় দেশ দুবাইয়ে। সেখানে একটি কনস্ট্রাকশন কোম্পানিতে কাজ করতেন তিনি গত ১৮ মার্চ কাজে গিয়ে একটি

ব;হুত;ল ভবন থেকে প;ড়ে আ;হ;ত হন মনির খান। গু;রুতর আ;হতাব;;স্থায় তাকে দুবাইয়ের রশিদ হাসপাতালে ভর্তি করানো হয়। পারিবারিক সূত্রে জানা গেছে, কাজ করতে গিয়ে বি;ল্ডিং থেকে পড়ে মা;থায় গু;রুত;র আ;ঘা;ত পান তিনি। এরপর

থেকেই জ্ঞা;নহী;ন অবস্থায় হাসপাতালের আ;ইসি;ইউ;তে রয়েছেন। তবে মালিকপক্ষ থেকে তার চিকিৎসার জন্য খোঁজখবর রাখছে না বলে জানা গেছে। জ্ঞা;নহীন; অবস্থায় মনির খান দুবাইয়ের রশিদ হাসপাতালের ৩১নং ওয়ার্ডের ২ বি শয্যায় রয়েছেন। সংশ্লিষ্ট সূত্রে জানা গেছে, দুর্ঘটনায় গু;রুত;র আ;হ;ত

হওয়ার পর তার মা;থায় বড় ধরনের অ;স্ত্রপ;চা;র হয়েছে। এরপর থেকে এখন পর্যন্ত তার জ্ঞা;ন ফেরেনি। হাসপাতালে ভর্তির পরের দিন বাংলাদেশি পরিচিত এক ব্য;ক্তি দেখতে গিয়েছিল তাকে। মনির খানের স্ত্রী লাভলী বেগম বলেন, ‘গত ১৮ মার্চ কাজ করতে গিয়ে আমার স্বামী গুরুতর আ;হ;ত হয়। বাড়িতে দুইদিন পরে আমরা খবর পাই। তাকে হাসপাতালে ভর্তি করার

পরে তার পরিচিত একজন দেখতে গিয়েছিল। আইসিইউতে রাখার পর আর তাকে দেখতে যেতে পারেনি। প্রায় দশ দিনের বেশি হাসপাতালে পড়ে আছে। আমরা কোনো খোঁজখবর নিতে পারছি না। দুবাইতে সে ভারতীয় মালিকের অধীনে কাজ করত।’ তিনি বলেন, ‘মালিকপক্ষের লোকজন চিকিৎসার খরচও দিচ্ছে না বলে জানতে পেরেছি। তার চি;কিৎসা;ও ঠিকমতো হচ্ছে না। তিনি

বেঁ;চে আছেন কিনা তারও কোনো খবর নাই!’প্রবাসী মনির খানের ১৫ বছর বয়সী ছেলে সাজিম খান বলেন, ‘আমার আব্বার চিকিৎসা হচ্ছে না সেখানে। কেউ তার কোনো খোঁজখবরও নিতে পারছি না। আমরা সরকারের কাছে সাহায্য চাই। তার চিকিৎসা নিশ্চিত করে দেশে আনতে চাই।’

About Gazi Mamun

Check Also

আট বছর ধরে ওমান, গাড়িচাপায় প্রা’ণ গেল বাংলাদেশি প্রবাসীর

ওমানে প্রাইভেটকারের চাপায় এক প্রবাসী বাংলা;দেশির ম;র্মান্তিক মৃ;ত্যু হয়েছে। শুক্রবার (১২ মার্চ) স্থানীয় সময় সাড়ে …

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *