ইসরাইলের বি’রুদ্ধে পদক্ষেপ নিতে বিশ্ব সম্প্রদা’য়ের প্রতি বাবুনগরীর আহ্বান

ফিলিস্তিনিদের ও’পর ইসরাইলি স’ন্ত্রাস ও নি’র্যাতন বন্ধ এবং দ’খলদারিত্ব অবসানে কার্যকর পদক্ষেপ নিতে বিশ্ব সম্প্রদা’য়ের প্রতি আহ্বান জানিয়েছেন হেফাজতে ইসলামের সাবেক আমীর আল্লামা জুনায়েদ বাবুনগরী। বৃহস্পতিবার

(১৩ মে) এক বিবৃতিতে তিনি বলেন, মু’সলমানদের তৃতীয় পবিত্রতম স্থান আল আকসাকে স’ন্ত্রাসী রাষ্ট্র ইসরাইল পুরো রমজান মাস জুড়েই সহিং’সতার কেন্দ্রস্থলে পরিণত করে রেখেছে। বিশেষত রোববার সন্ধ্যা থেকে আল-আকসায় নামাজরত মুসল্লিদের উপর ব’র্বরোচিতভাবে ঝাঁ’পিয়ে পড়ে ইসরাইলি দ’খলদাররা।

বাবুনগরী বলেন, এ ধরনের হা’মলা চা’লিয়ে ইসরাইল সুস্পষ্টভাবে আন্তর্জাতিক আইন ও চুক্তি ভঙ্গ করছে এবং একইসাথে চ’রমভাবে মা’নবাধিকার ল’ঙ্ঘন করে চলেছে। অথচ জাতিসংঘসহ ওআইসি, আরব দেশসমূহ ও আন্তর্জাতিক সম্প্রদায় লোকদেখানো কিছু বুলি আওড়ানো ছাড়া ইসরাইলী স’ন্ত্রাস থেকে

ফিলিস্তিনীদের রক্ষায় কার্যকর কিছুই করছে না। কার্যত, তারা অ’বৈধ রাষ্ট্র ইসরাইলের স’ন্ত্রাসী কর্মকাণ্ডকে নীরবে সমর্থন দিয়ে যাচ্ছে। আল্লামা বাবুনগরী বলেন, ফিলিস্তিনিদের স্বাধীন রাষ্ট্র প্রতিষ্ঠার সুযোগ ক্রমেই হাওয়ায় মিলিয়ে যাচ্ছে। বিপরীতে ইসরাইলের নিয়ন্ত্রণ আরো নিরঙ্কুশ হচ্ছে। আন্তর্জাতিক আইন ল’ঙ্ঘন করে প্রতিদিন নতুন নতুন ফিলিস্তিনী এলাকা দ’খলে

নিচ্ছে ইসরাইল। তাদের নিজ এলাকা থেকে বিতাড়িত করে গড়ে তোলা হচ্ছে নতুন নতুন ইহুদি বসতি। ফিলিস্তিনিরা র’ক্ত ঝরিয়ে প্র’তিবাদ করছেন বটে। কিন্তু স’ন্ত্রাসী কায়দায় সেই প্র’তিবাদ দ’মন করছে ইসরাইল। বিশ্বমোড়ল দেশসমূহের ক’ঠোর সমালোচনা করে হেফাজতের সাবেক আমীর বলেন, মা’নবাধিকার প্রশ্নে তাদের দ্বিমুখী নীতির কারণে অ’বৈধ রাষ্ট্র ইসরাইল যুগ যুগ ধরে ফিলিস্তিনীদের সকল অধিকার ভূলুণ্ঠিত ও তাদের খু’ন করে যাওয়ার সুযোগ পাচ্ছে। পশ্চিমা এসব মোড়লরা মা’নবাধিকারের

ভূয়া অ’ভিযোগ তুলে আফগানিস্তান, ইরাক, সিরিয়া, লিবিয়া ও সুদানের মতো বহু মু’সলিম দেশকে ত’ছনছ করে দিয়েছে, অথচ ইসরাইলের স’ন্ত্রাসী কর্মকাণ্ডকে তারা প্রকাশ্যে সমর্থন দিয়ে যাচ্ছে। ইসরাইলের সকল স’ন্ত্রাসী কর্মকাণ্ডের দায় থেকে তারা কোনভাবেই মুক্ত নয়।
হেফাজত আমীর একই সাথে ওআইসি, আরব লীগ ও মু’সলিম দেশসমূহের নতজানু নীতি ও পারস্পরিক অনৈক্যে হতাশা প্রকাশ করে বলেন, ওআইসি প্রতিষ্ঠা হয়েছিল ফিলিস্তিনীদের স্বাধীকার প্রতিষ্ঠা ও মসজিদুল আকসাকে দ’খলদার মুক্ত রাখার প্রত্যয়

নিয়ে। ফিলিস্তিনিদের ও’পর ইসরাইলিদের লাগাতার স’ন্ত্রাসী কর্মকাণ্ডে ওআইসির ধারাবাহিক নিরবতা সংস্থাটির কার্যকারিতাকে প্রশ্নের মুখে নিয়ে যায়। আরব দেশসমূহের শাসকরাও উম্মাহ চেতনাবোধ থেকে বহু দূরে সরে পড়েছে। একইভাবে আরব জাতীয়তাবাদের চেতনাও তাদের মাঝে অনুপস্থিত। মু’সলিম উম্মাহর উচিত, মসজিদুল আকসা ও ফিলিস্তিনের আরব ভূমি মুক্ত করতে সোচ্চার জনমত তৈরি করা, যাতে নিজ নিজ দেশের শাসক মহল এ বি’ষয়ে জো’রালো অবস্থান নিতে বা’ধ্য হয়।

আল্লামা বাবুনগরী চলমান ইসরাইলি ব’র্বরতার বি’রুদ্ধে বিশ্বের বিভিন্ন মু’সলিম দেশের পাশাপাশি বাংলাদেশ স’রকারের প্র’তিবাদি অবস্থানকে স্বাগত জানিয়ে এ বি’ষয়ে জো’রালো কূটনৈতিক উদ্যোগ এবং ইসরাইলের বি’রুদ্ধে কার্যকর চা’প তৈরির আহ্বান জানান। পাশাপাশি তিনি দেশের বিভিন্ন কা’রাগারে ব’ন্দি ওলামায়ে কেরামকে মুক্তিদান ও মি’থ্যা মা’মলা প্রত্যাহারের জন্য স’রকারের প্রতি জো’র আহ্বান জানান।

সুত্রঃ সময়

About Gazi Mamun

Check Also

ঢাকায় বিক্ষোভের ডাক: যে কারণে ‘মাঠে নামছে’ ইসলামী আন্দোলন

বাংলাদেশের পাসপোর্ট থেকে ‘একসেপ্ট ইসরায়েল’ শব্দটি বাদ দেয়ার প্রতিবাদে মাঠে নামার ঘোষণা ঘোষণা দিয়েছে ইসলামী …

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *