ইসরায়েলের সঙ্গে সরকার নতুন প্রেম করতে যাচ্ছে কেন : ফখরুল

ইসরায়েলের সঙ্গে সরকার নতুন প্রেম করতে যাচ্ছে বলে মন্তব্য করেছেন বিএনপি মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর। রোববার (২৩ মে) গুলশানে চেয়ারপারসনের রাজনৈতকি কার্যালয়ে আয়োজিত সংবাদ সম্মেলনে তিনি

এ মন্তব্য করেন মির্জা ফখরুল বলেন, ‘স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয় থেকে সিদ্ধান্ত মোতাবেক বাংলাদেশের পাসপোর্টে যেখানে ‘একসেপ্ট ইসরায়েল’ কথাটি লেখা থাকে, আমাদের যে ই-পাসপোর্ট দেয়া হচ্ছে সেখানে এই কথাটি লেখা থাকছে না।’ তিনি বলেন, ‘যে

ইসরায়েল আমাদের শত্রু, পৃথিবীর শত্রু, ইসরায়েল মানবাধিকারকে ধ্বংস করছে। অনেকে বলেন যে, ফিলিস্তিনি ইসলামী রা’ষ্ট্র সেই জন্য সমর্থন
দেবেন? না, আমরা সমর্থন করি ফিলিস্তিনি মানুষদের, কারণ তারা মানুষ, তাদের শিশুরা শিশু, গত কয়েকদিনে একশর মতো হ”ত্যা করা হয়েছে। কয়েক বছর আগে প্রায় তিন লাখ শিশু

হ”ত্যা করা হয়েছিল। ইসরায়েল পৃথিবীর জন্য হুমকি হয়ে দাঁড়িয়েছে।’ মির্জা ফখরুল বলেন, ‘বাংলাদেশ সরকার কেন এই নতুন করে প্রেম করতে যাচ্ছে ইসরায়েলের সঙ্গে , কারণটা কী? কয়েকদিন আগে, আমি একটা যোগসূত্র দেই আপনাদের। কয়দিন আগে আল জাজিরাতে একটা রিপোর্ট হয়েছিল না, সেই রিপোর্টে এসেছিল যে একটা বিশেষ ডিভাইস সার্ভিলেন্স য’ন্ত্র, এ য’ন্ত্র অরিজিনালি ইসরায়েল থেকে সরবরাহ করা হয়েছে। এখন

জনগণের মধ্যে আশঙ্কা সৃষ্টি হয়েছে। তাহলে কী সরকার আবারও ইসরায়েলের সঙ্গে চুক্তি করতে যাচ্ছে? তিনি বলেন, ‘একটা কথা আমরা সবাই জানি, ইসরায়েল কিন্তু গোয়েন্দাবৃত্তিতে পৃথিবীর মধ্যে শ্রেষ্ঠ। ওটা করেই কিন্তু তারা এখন শক্তিশালী দেশ হয়ে আছে। সুতরাং এ জিনিসগুলো অত্যন্ত উদ্বেগের সঙ্গে বাংলাদেশের মানুষ দেখছে।’ দলের পক্ষ থেকে ইসরায়েলবিরোধী অবস্থান ব্যক্ত করলেও বিএনপির যুগ্ম মহাসচিব লায়ন আসলাম চৌধুরী ইসরায়েল সংশ্লিষ্টার দায়ে দীর্ঘদিন কারাবন্দী রয়েছেন।

এ বিষয়ে দৃষ্টি আকর্ষণ করা হলে মির্জা ফখরুল বলেন, ‘ব্যক্তিগতভাবে যদি কেউ ব্যবসা-বাণিজ্য বা কোনো কারণে যদি সংশ্লিষ্টতা থেকে থাকে তাতে দলের দায় হতে পারে না।’
তিনি বলেন, ‘বিএনপি ইতোমধ্যে ফিলিস্তিনি জনগণের স্বাধীন রাষ্ট্রের দাবির সঙ্গে একাত্মতা ঘোষণা করে ফিলিস্তিন প্রেসিডেন্টকে পত্র পাঠিয়েছে এবং আবারও দুই রাষ্ট্র প্রতিষ্ঠার নীতিকে সমর্থন জানিয়েছে।’ বাংলাদেশের দিকে ধেয়ে আসছে ঘূর্ণিঝড় ইয়াস।

আগামী বুধবার (২৬ মে) নাগাদ উড়িশা-পশ্চিমবঙ্গ-বাংলাদেশের খুলনা উপকূলে আঘাত হানতে পারে ঘূর্ণিঝড়টি। তবে বর্তমানে পূর্ব-মধ্য বঙ্গোপসাগরে সৃষ্ট সুস্পষ্ট লঘুচাপটি নিম্নচাপে পরিণত হয়েছে বলে জানিয়েছে আবহাওয়া অধিদপ্তর। রোববার (২৩ মে) দুপুরে আবহাওয়ার এক বিশেষ বিজ্ঞপ্তিতে এ তথ্য জানানো

হয়েছে। বিজ্ঞপ্তিতে বলা হয়েছে, পূর্ব-মধ্য বঙ্গোপসাগর ও তৎসংলগ্ন এলাকায় অবস্থানরত সুস্পষ্ট লঘুচাপটি ঘনীভূত হয়ে একই এলাকায় নিম্নচাপে পরিণত হয়েছে। এটি আজ রোববার (২৩ মে) দুপুর ১২টায় চট্টগ্রাম সমুদ্রবন্দর থেকে ৭০০ কিলোমিটার দক্ষিণ-দক্ষিণ-পশ্চিমে, কক্সবাজার সমুদ্রবন্দর থেকে ৬১৫ কিলোমিটার দক্ষিণ-দক্ষিণ-পশ্চিমে, মংলা সমুদ্রবন্দর থেকে ৭১০ কিলোমিটার দক্ষিণে এবং পায়রা সমুদ্রবন্দর থেকে ৬৫৫

কিলোমিটার দক্ষিণে অবস্থান করছিল। এটি আরও ঘনীভূত হয়ে গভীর নিম্নচাপ এবং পরবর্তীতে ঘূর্ণিঝড়ে পরিণত হয়ে উত্তর-পশ্চিম দিকে অগ্রসর হতে পারে বলেও জানিয়েছে আবহাওয়া অফিস।
বিজ্ঞপ্তিতে আরও বলা হয়েছে, নিম্নচাপ কেন্দ্রের ৪৪ কিলোমিটারের মধ্যে বাতাসের একটানা সর্বোচ্চ গতিবেগ ঘণ্টায় ৪০ কিলোমিটার, যা দমকা অথবা ঝড়ো হাওয়া আকারে ৫০ কিলোমিটার পর্যন্ত বৃদ্ধি পাচ্ছে। নিম্নচাপ কেন্দ্রের কাছে সাগর উত্তাল রয়েছে। এছাড়া

চট্টগ্রাম, কক্সবাজার, মোংলা ও পায়রা সমুদ্রবন্দরকে ১ নম্বর দূরবর্তী সতর্ক সংকেত দেখিয়ে যেতে বলা হয়েছে। উত্তর বঙ্গোপসাগর ও গভীর সাগরে অবস্থানরত সব মাছ ধরার নৌকা ও ট্রলারকে পরবর্তী নির্দেশ না দেয়া পর্যন্ত নিরাপদ আশ্রয়ে যেতে বলা হয়েছে। সেই সঙ্গে তাদের গভীর সাগরে বিচরণ না করতে বলা হয়েছে। এর আগে আবহাওয়া অধিদপ্তর জানায়, সোমবার

(২৪ মে) থেকে তীব্র তাপদাহ কমতে শুরু করবে। মঙ্গলবার (২৫ মে) স্বাভাবিক তাপমাত্রা বিরাজ করবে। এরপর বুধবার (২৬ মে) বিকেল নাগাদ উত্তর উড়িষ্যা, পশ্চিমবঙ্গ ও বাংলাদেশের দক্ষিণাঞ্চলে এলাকায় আঘাত হানার সম্ভাবনা রয়েছে।
ঘুর্ণিঝড় ইয়াস এখন পর্যন্ত সুপার সাইক্লোনের সম্ভাবনা নেই। তীব্র থেকে তীব্রতর ঘুর্ণিঝড় হতে পারে। বেশি ঝুঁকির মধ্যে আছে খুলনা, সুন্দরবন এলাকা।

About Gazi Mamun

Check Also

‘স্বাধীনতাবিরোধীরাই মন্দিরে কোরআন শরিফ রেখেছে’

মুক্তিযুদ্ধবিষয়ক মন্ত্রী আ ক ম মোজাম্মেল হক বলেছেন, স্বাধীনতাবিরোধী ও তার দোসররা এখনও দেশে বিশৃঙ্খলা …

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *