এবার কাবুল বিমানবন্দরের দায়িত্ব নিতে চায় তুরস্ক

আফগানিস্তান থেকে যুক্তরাষ্ট্র ও ন্যাটো বাহিনী চলে যাওয়ার পর কাবুল বিমানবন্দরের নিরাপত্তা ও পরিচালনায় দায়িত্ব নেওয়ার প্রস্তাব দিয়েছে তুরস্ক। তবে মার্কিন কর্মকর্তারা বলছেন, তুর্কি সরকার এজন্য শর্তারোপ করছে।

যা আগামী সপ্তাহে দুই দেশের শীর্ষ নেতার বৈঠকে সমাধান হতে পারে ব্রিটিশ বার্তা সংস্থা রয়টার্স এখবর জানিয়েছে।তুরস্কের কর্মকর্তারা জানান, মে মাসে ন্যাটোর বৈঠকে আঙ্কারা প্রস্তাবটি তুলে ধরে। ১১ সেপ্টেম্বর আফগানিস্তান থেকে মার্কিন ও ন্যাটো

সেনাদের প্রত্যাহার করা হবে। এক তুর্কি কর্মকর্তা জানান, তুরস্ক ও যুক্তরাষ্ট্রের কর্মকর্তারা এই বিষয়ে সম্ভাব্য বিষয়গুলো নিয়ে কথা আলোচনা করেছেন। ওয়াশিংটন কিছু বিষয়ে সম্মত হয়েছে। তার মতে, আফগানিস্তান থেকে মার্কিন প্রত্যাহারের সিদ্ধান্তের পর

তুরস্কের পক্ষ থেকে কাবুল বিমানবন্দরের নিরাপত্তা নিশ্চিত করার প্রস্তাব দেওয়া হয়। ন্যাটো ও যুক্তরাষ্ট্রের সঙ্গে এই বিষয়ে আলোচনা চলছে কাবুল বিমানবন্দরে আন্তর্জাতিক ফ্লাইটের নিরাপত্তা নিশ্চিত করার দায়িত্ব পেলে পশ্চিমাদের সঙ্গে তুরস্কের

সম্পর্কের উন্নতি ঘটতে পারে। রাশিয়ার প্রতিরক্ষা ব্যবস্থা কেনা এবং ভূমধ্যসাগরে অনুসন্ধান নিয়ে বিরোধের পর থেকে ইউরোপীয় দেশগুলোর সঙ্গে আঙ্কারার সম্পর্কে কিছুটা ফাটল দেখা দিয়েছে সোমবার তুরস্কের প্রতিরক্ষামন্ত্রী হুলুসি আকার জানিয়েছেন,

আঙ্কারার প্রস্তাবে মিত্রদের কাছ থেকে সহযোগিতা নেওয়ার বিষয়টি অন্তর্ভুক্ত আছে।নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক এক মার্কিন কর্মকর্তা জানান, তারা তুরস্কের প্রস্তাবকে স্বাগত জানাচ্ছেন। কিন্তু এই কাজের জন্য যুক্তরাষ্ট্রের কাছ থেকে অনেক কিছু চাইছে আঙ্কারা

আগামী সোমবার ন্যাটোর নেতারা আফগানিস্তান ইস্যুতে আলোচনা করবেন। এসময়ে তুরস্কের প্রেসিডেন্ট রজব তাইয়্যেব এরদোয়ান প্রথমবারের মতো মার্কিন প্রেসিডেন্ট জো বাইডেনের সঙ্গেও বৈঠক করবেন।

About Gazi Mamun

Check Also

আফগানিস্তানে সক্রিয় ভূমিকা রাখতে পারে তুরস্ক: তালেবান

তুরস্ক তার সম্পদের সাহায্যে বিনিয়োগ, কিছু প্রকল্প বাস্তবায়নের পাশাপাশি আফগানিস্তানে সংস্কার ও পুনরুদ্ধারে সক্রিয় ভূমিকা …

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *