চীনা জেলেদের জাহাজ পাকিস্তানে, উদ্দেশ্য লুটপাট বলছে ভারত!

ইসলামিক ওয়ার্ল্ড মাঝ সমুদ্রে বৈরি আবহাওয়ার কবলে পড়ে পাকিস্তানের গদর বন্দরে আশ্রয়ের জন্য পৌঁছেছে চীনের পাঁচটি মাছ ধরার কাজে ব্যবহৃত জাহাজ। করাচিতে অবস্থিত চীনের দূতাবাসের পক্ষ থেকে বিষয়টি নিশ্চিত করা হয়েছে।

ভারতীয় গণমাধ্যমে অভিযোগ তোলা হয়েছে, পাকিস্তানের জলসীমায় থাকা সামুদ্রিক সম্পদ লুটপাটের উদ্দেশ্যে জাহাজগুলো সেখানে ভিড়েছে। কিন্তু সে অভিযোগ নাকচ করে দিয়ে পাকিস্তানে চীনের কনস্যুলেট জেনারেলের পক্ষ থেকে জানানো হয়, বৈরি

আবহাওয়ায় জাহাজগুলো মেরামত ও গন্তব্যে ফিরে যেতে খাবারসহ অন্যান্য প্রয়োজনীয় জিনিসপত্রের মজুদ নিতেই জেলেরা গদরে আশ্রয় নিয়েছে। ওই জাহাজের এক ক্রু জানান, গত নভেম্বরের ২০ তারিখে জাহাজগুলো ভারতীয় মহাসাগরের আন্তর্জাতিক

জলসীমার কাছে পৌঁছায় মাছ ধরার উদ্দেশ্যে। কিন্তু তারা যেখানে অবস্থান করছিলেন সেখানে প্রায় প্রতিদিনই বাতাসের গতি ছিল ৭ থেকে ৮ মাত্রার। এছাড়া সমুদ্রের ঢেউ দুই দশমিক ৫ থেকে তিন দশমিক ৬ মিটার পর্যন্ত উচ্চতায় উঠতো। এ অবস্থায় জাহাজগুলো ভয়াবহ মাত্রায় দুলতে থাকতো যা খুবই ঝুঁকিপূর্ণ ছিল। এছাড়া

দুটো জাহাজে ত্রুটি দেখা দেওয়ায় জরুরি ভিত্তিতে আশ্রয় খুঁজতে হয়েছে তাদের। আর এ ক্ষেত্রে মাত্র পাঁচ নটিক্যাল মাইল দূরেই ছিলো গদর বন্দরটি। ওই ক্রু জানান, পাকিস্তান চীনের মিত্র দেশ হওয়ায় ওই বন্দরেই জাহাজ ভেড়ানোর সিদ্ধান্ত নেন তারা।

এদিকে, চীনের ফিসারি কোম্পানির পক্ষ থেকে জানানো হয়েছে, আন্তর্জাতিক জলসীমা ব্যবহারের সব নিয়মকানুন মেনেই প্রয়োজনীয় কাগজপত্র সঙ্গে নিয়ে জাহাজগুলো পাকিস্তানের জলসীমার কাছে মাছ ধরতে গিয়েছিল। সেখানে কোন অবৈধ বা নিয়মভঙ্গের মতো কর্মকাণ্ডের উদ্দেশ্য নেই। এর আগে, গত ১১ জুন ইউটিউবে

প্রকাশিত এক ভিডিওতে দেখা যায়, চীনের কয়েকটি জেলে জাহাজ গদর বন্দরের দিকে এগিয়ে যাচ্ছে। সেসময় অভিযোগ তোলা হয়,জাহাজগুলো বেলচিস্তানের সামুদ্রিক সম্পদ লুট করতেই পাকিস্তানের ওই বন্দর অভিমুখে যাচ্ছিল।

About Gazi Mamun

Check Also

ইসলাম ধর্ম ও মুসলিমদের প্রশংসা করে যা বললেন পুতিন

ইসলাম ধর্ম এবং রাশিয়ায় বসবাসকারী মুসমানদের ভূয়সী প্রশংসা করেছেন দেশটির প্রেসিডেন্ট ভ্লাদিমির পুতিন।বলেছেন, “এটি শান্তির …

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *