রাজধানীতে ২০ টাকার রিকশা ভাড়া এখন ৪০০!

আজ বুধবার (৩০ জুন) রাজধানীর বিভিন্ন এলাকা ঘুরে দেখা যায় অফিসগামী মানুষের দুর্ভোগ অফিসগামী লোকজনদের ১০০ টাকার ভাড়া আখন ৪০০ টাকা দিতে হচ্ছে। এই মহামারী মধ্যে সব কিছুরই প্রায় দাম বেড়েছে

আর এর মধ্যে দিনমজুর বা রিক্সা চালকদের কমেছে আয়-রোজগার। খাবার সামগ্রী জিনিসপত্র কিনতে হচ্ছে উচ্চ দামে তাই তারা এখন ২০ টাকার ভাড়া চেয়ে বসছে ৪০০ টাকা ৩০০ টাকা। অতি প্রয়োজন ছাড়া সরকারি বিধি নিষেধ অনুযায়ী বাহিরে বের

হওয়া যাবেনা। পুলিশ প্রশাসন সব সময় ঘুরছে বাহিরে অতি প্রয়োজন ছাড়া বাইরে বের হলে করা হবে গ্রেফতার জানিয়েছে পুলিশ প্রশাসন। সকাল থেকে দাঁড়িয়ে পাচ্ছেন না অফিসগামী লোকজনেরা কোন যানবাহন তাই বেশি ভাড়া দিয়ে যেতে হচ্ছে

অফিসে। স্বল্প দূরত্বের ভাড়া চাচ্ছে দ্বিগুণ-তিনগুণ ১০০ টাকার ভাড়া চেয়ে বসেছে ৫০০ টাকা। এর মধ্যে কিছু যাত্রী অনেক প্রয়োজনীয়তা থাকার কারণে ৫০০ টাকা ভাড়া দিয়ে যেতে হচ্ছে তাদের গন্তব্যস্থলে। অফিস গ্রামের লোকজন বলছে আমাদের

পুরো বেতন হয়তো এই যাওয়া-আসার ভারতে চলে যাবে। ভাড়া বেশি দেওয়া সত্ত্বেও একই সিএনজিতে যেতে হচ্ছে চারজন গাদাগাদি অবস্থাতে। গণপরিবহণের বন্ধ থাকায় সুযোগে সড়কে দাপট দেখাচ্ছে রিকশা চালক। গাড়ি না পাওয়ায় অনেকে বাড়তি

ভাড়া দিয়েও যাচ্ছেন গন্তব্যস্থলে। কোনো ফাঁকা সিএনজি দেখলেই হামলে পড়ছে লোকজন। এ সময় মিরপুর-১০ নম্বর গোলচত্বর থেকে কারওয়ান বাজার পর্যন্ত রিকশায় ভাড়া চায় ৫০০ টাকা।

পুরো ঢাকা শহরে রিকশা চালকরা ভাড়া নিচ্ছে দ্বিগুণ-তিনগুণ তারপরও অতিরিক্ত ভাড়া দিয়ে আমাদেরকে যেতে হচ্ছে নিজেদের গন্তব্য স্থলে।

About Gazi Mamun

Check Also

এবার র‍্যাবের অভিযান আ’লীগ নেতার বাড়িতে , অবৈধ টাকা-স্বর্ণে ভরপুর সিন্দুক !

এবার রাজধানীর গেণ্ডারিয়া থানা আওয়ামী লীগ নেতা এনামুল ও রূপনের নারিন্দার বাড়ি থেকে টাকা ভর্তি …

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *