মহামারিতে কোরবানি না করা নিয়ে যা বলে ইসলাম

যত বিধান আছে, তার মধ্যে কোরবানি অন্যতম। কোরবানি করা অত্যন্ত তাৎপর্যমণ্ডিত ও ফজিলতপূর্ণ ইবাদত। স্বাভাবিক জ্ঞানসম্পন্ন, প্রা’প্ত বয়স্ক, মুসলিম যদি ‘নিসাব’ পরিমাণ সম্পদের মালিক থাকেন,

তাদের পক্ষ থেকে একটি কোরবানি দেওয়া ওয়াজিব বা আবশ্যক। কারা’ কোরবানি করবেন হজরত মুহা’ম্ম’দ (সা.) বলেছেন, ‘তোমা’দের মধ্যে যে ব্যক্তি সামর’্থ্য রাখে, সে যেন কোরবানি করে।’ অন্য রেওয়াতের মধ্যে এসেছে, ‘সামর’্থ্য থাকার পরও

যদি সে কোরবানি না করে, তাহলে সে যেন আমা’দের ঈদগাহে না আসে।’ প্রা’প্ত বয়স্ক, সুস্থ মস্তিষ্কসম্পন্ন প্রত্যেক মুসলিম নর-নারী—যে ১০ জিলহজ ফজর থেকে ১২ জিলহজ সূর্যাস্ত পর্যন্ত সময়ের ভেতরে প্রয়োজনের অতিরিক্ত নেসাব পরিমাণ সম্পদের মালিক হবে; তার ওপর কোরবানি করা ওয়াজিব। অর্থ-কড়ি,

টাকা-পয়সা, সোনা-রূপা, গহনা-অলঙ্কার, বসবাস ও খোরাকির অতিরিক্ত জমি, প্রয়োজন অতিরিক্ত বাড়ি, ব্যবসায়িক পণ্য ও অ’প্রয়োজনীয় সব আসবাবপত্র কোরবানির নেসাবের ক্ষেত্রে হিসাবযোগ্য। মহা’মা’রিতে কোরবানি না করলেও হবে? মাওলানা ফরিদ উদ্দিন মাসউদের মতে, সামর’্থ্যবানরা এই করো’নার

সময়েও কোরবানি বাদ দিতে পারবেন না৷ এই ওয়াজিব বাদ দিলে গু’নাহ হবে৷ যদি কোনো মুসলামান কোরবানি না করে সেই টাকা দান করে দেন? এই প্রশ্নের জবাবে তিনি বলেন, না। নামাজ বাদ দিয়ে শুধু রোজা রাখলে তাতে নামাজের ফরজ আ’দায় হয় না৷ নামাজও পড়তে হবে। রাসুল (সা.) হিজরত করার পর প্রতিবছর

কোরবানি করেছেন। এরপর থেকে তিনি কখনো কোরবানি করা থেকে বিরত থাকেননি। ইসলামের ইতিহাসে কোরবানি বাদ দেওয়ার কোনো নজির নাই৷ তবে তিনটি পরিস্থিতিতে ব্যাক্তিগতভাবে কোনো মুসলমান কোরবানির সময় কোরবানি না-ও দিতে পারেন৷ কিন্তু পরে তাকে কাফফারা আ’দায় করতে হবে৷ সুবিধামতো সময়ে কোরবানির টাকা দিয়ে একটি পশু কিনে গরিবের মধ্যে বিলিয়ে

দিতে হবে বলে জানান মুফতি মাওলানা মোহা’ম্ম’দ আব্দুল্লাহ৷ ওই তিনটি পরিস্থিতি হলো: সাধারণ শঙ্কা, প্রবল আশঙ্কা এবং নিশ্চিত ক্ষ’তি৷ করো’নার সময় কোরবানি দিলে শারীরিক ক্ষ’তি অথবা ক্ষ’তি হবে এমন তথ্যগত প্রমাণ পেলে কিংবা নিশ্চিতভাবে জীবনহানির আশঙ্কা ‘হতে পারে এমন ক্ষেত্রে কোরবানির সময় কোরবানি না-ও দিতে পারেন।

About Gazi Mamun

Check Also

কাঁচাবাজার-নিত্যপণ্যের কেনাবেচা ৬ ঘণ্টা!

আটদিনের শিথিলতা শেষে করোনাভাইরাসের সংক্রমণ নিয়ন্ত্রণে ফের ১৪ দিনের জন্য কঠোর বিধিনিষেধ দিয়েছে সরকার। শুক্রবার …

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *