Home / সারা বাংলাদেশ / দৌড় দিলেন কাজী, বরের পাশে বসে পড়লেন কনের ভাবী!

দৌড় দিলেন কাজী, বরের পাশে বসে পড়লেন কনের ভাবী!

দিনাজপুরের বিরামপুরে এক কিশোরীর বাল্য বিয়ে ভে’ঙে দিয়েছেন নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট। বৃহস্পতিবার (২ ডিসেম্বর) রাতে উপজেলার খানপুর ইউনিয়নের ন্যাটাশন গ্রামে এ ঘটনা ঘটে। জানা যায়, কনের বয়স

মাত্র ১৪ বছর হওয়ায় রাতের বেলা গো;পনে বিয়ের আয়োজন করেছিলেন পরিবার। পাত্র ছিলেন নবাবগঞ্জ উপজেলার কুশদহ ইউনিয়নের সেকেন্দার আলীর ছেলে রুবেল হোসেন (৩০)। বিয়ে পড়ানোর এক পর্যায়ে জানা গেলো এই বাড়িতে হা’না দিয়েছেন

নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট। তাৎক্ষনিক কনের ভাবি নিজেই সেজে যান কনে। কিন্তু ম্যাজিস্ট্রেট তাদের এই সাজানো না’টক ধরে ফেলেন। বিয়ের কাজী রেহান রেজাকে (৪৭) ছয় মাসের কা’রাদ’ণ্ড ও বড় রুবেল হোসেনকে করেন ২ হাজার টাকা জ’রিমা’না।

বিরামপুর উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা (ইউএনও) ও নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট পরিমল কুমার সরকার জানান, বৃহস্পতিবার রাতে খানপুর ইউনিয়নের ন্যাটাশন গ্রামে ষষ্ঠ শ্রেণিতে পড়ুয়া এক শিক্ষার্থীর বিয়ে হ’চ্ছে এমন খবর পাই। পরে থানা পুলিশকে

সাথে নিয়ে ঘটনাস্থলে উপস্থিত হই। প্রশাসনের উপস্থিতি টের পেয়ে বিয়ের কাজী পা’লানোর চেষ্টা করেন এবং কনের ভাবি তাৎক্ষণিক কনের বিয়ের আসর থেকে সরিয়ে নিজেই কনের আসরে বসেন।
ঘটনাস্থল থেকে কাজী ও বর ও কনের ভাবিকে আ’টক করা হয়

এবং সেখানে ভ্রাম্যমাণ আদালতে মাধ্যমে কাজী রেহান রেজাকে ছয় মাসের বিনাশ্রম কা’রাদ’ণ্ড ও বর রুবেল হোসেনকে দুই হাজার টাকার জ’রিমা’না করা হয়। নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট আরও

জানান, ষষ্ঠ শ্রেণিতে পড়ুয়া ওই ছাত্রীকে ১৮ বছর বয়স না হওয়া পর্যন্ত বিয়ে দেবেন না এমন স্বীকারোক্তিতে মুচ’লেকা নিয়ে কনের ভাবি ও পরিবারের অন্যান্যদের ছেড়ে দেওয়া হয়।

About Gazi

Check Also

ভিসা-পাসপোর্ট ছাড়াই ৫ থেকে ৭ দিনের ভ্রমণকার্ড নিয়ে ভারত যেতে পারবেন বাংলাদেশীরা

বাংলাদেশের সীমান্তরক্ষী বাহিনী- বর্ডার গার্ড বাংলাদেশের (বিজিবি) মহাপরিচালক মেজর জেনারেল মোহাম্মদ সাফিনুল ইসলাম বলেছেন, ‘বাংলাদেশের …

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *