Home / আন্তর্জাতিক / মূল্য হারাবে ডলার, কদর বাড়বে সোনা-রূপার: মার্কিন ব্যবসায়ী

মূল্য হারাবে ডলার, কদর বাড়বে সোনা-রূপার: মার্কিন ব্যবসায়ী

একসময় মার্কিন ডলারের মান জিম্বাবুয়ের ডলারের মতো ‘মূল্যহীন’ হয়ে যেতে পারে বলে সতর্ক করেছেন মার্কিন ব্যবসায়ী ও লেখক রবার্ট তোরো কিয়োসাকি।

কারণ হিসেবে তিনি বলেছেন, অর্থনৈতিক মন্দা কাটিয়ে উঠতে অনেক দেশই ব্যাপকহারে টাকা ছাপাচ্ছে। তিনি বলেছেন, করোনা মহামারির সময় অর্থনীতির চাকা সচল রাখতে সবাই ব্যাপকহারে টাকা ছাপাচ্ছে। হয়তো একসময় মার্কিন ডলারের মান জিম্বাবুয়ের

ডলারের মতো হয়ে যাবে। এ বছরে বিশ্বের জিডিপির ১৬ শতাংশ মুদ্রা ছাপানো হয়েছে। এটা কতক্ষণ রাষ্ট্রগুলো ধরে রাখতে পারবে-এটাই এখন প্রশ্ন? তিনি আরও বলেন, ঋণের পরিমাণ এত বেশি যে তারা যদি টাকা ছাপানো বন্ধ করে দেয় তাহলে ধস নামবে।

যখন ধস নামে তখন সবাই বুঝতে পারবে বিশ্বের রিজার্ভ মুদ্রা কতটা মূল্যহীন। তখন মনে হবে, বেশি বেশি সোনা ও রূপা থাকলেই ভালো হতো। বর্তমানে স্বর্ণের যে ঘাটতি বিদ্যমান, সামনে তা আরও বাড়বে। যখন ধস নামবে, যেটা আসছে-

আমরা জানি না কখন ধস আসবে, কিন্তু ধস নামবে। বাজার ধস ও অর্থনৈতিক মন্দার বিষয়ে বিনিয়োগকারীদেরও সতর্ক করেছেন কিয়োসাকি। সম্প্রতি এক টুইটে দাম কমে যাওয়ার পর তিনি স্বর্ণ, রৌপ্য, বিটকয়েন ও রিয়েল এস্টেট ক্রয়ের পরিকল্পনার

কথাও জানিয়েছেন। ‘রিচ ড্যাড পুয়র ড্যাড’ খ্যাত এ লেখক টুইটে লিখেছেন, ‘ধস ও মন্দা আসছে। স্বর্ণ, রৌপ্য, বিটকয়েন ও রিয়েল এস্টেটের দামও পড়ে যাবে। দাম পড়ে যাওয়ার পর আরও বেশি স্বর্ণ, রৌপ্য, বিটকয়েন ও রিয়েল এস্টেট ক্রয়ের

জন্য প্রস্তুত হন। ভুয়া মুদ্রাস্ফীতিতে ধস নামার পর ধনী হওয়ার সুযোগ আসছে। সচেতন থাকুন, নিজের যত্ন নিন। ব্যক্তিগতভাবে আর্থিক বিনিয়োগের বিষয়ে পরামর্শদাতা হিসেবে কিয়োসাকির খ্যাতি আছে। বাজার ধস ও মন্দার বিষয়ে তিনি

১ বছর ধরে টুইট করে আসছেন। রিচ গ্লোবাল ও রিচ ড্যাড কোম্পানির প্রতিষ্ঠাতা গত জুনে টুইট করেছিলেন, ‘ভালো খবর হলো, ধসের সময়টা ধনী হওয়ার সেরা সময়। খারাপ খবর হলো পরবর্তী ধসের সময়টা বেশ লম্বা সময় ধরে চলবে।

About Gazi

Check Also

“সাড়ে ৩০ ঘণ্টা উড়ে তুরস্কের ‘ড্রোনের’ নতুন রেকর্ড!

তুরস্কের তৈরি মানববিহীন আঙ্কা-এস ই’উ’কে’ভ ড্রোন সবচেয়ে বেশি সময় আকাশে ওড়ার নতুন রেকর্ড গড়েছে। নতুন …

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *