Home / আলোচিত বাংলাদেশ / ব্যাংকে ১ লাখ টাকার বেশি থাকলে ১৫০ টাকা কেটে নিবে সরকার

ব্যাংকে ১ লাখ টাকার বেশি থাকলে ১৫০ টাকা কেটে নিবে সরকার

নতুন বছর শুরু হতে না হতেই বিগত বছরের অ্যাকাউন্ট থেকে টাকা কে’টে রাখছে ব্যাংক। এতে করে দু’শ্চিন্তায় পড়েছে অ্যাকাউন্ট মালিকরা। তবে এ ব্যাপারে ভ’য় পাওয়ার কিছু নেই। মূলত ব্যাংক থেকে

আবগারি শু’ল্ক হিসেবে এই টাকা কে’টে রাখা হচ্ছে বলে জানিয়েছে ব্যাংক কর্তৃপক্ষ। এটি কোনো ব্যাংকিং সেবা মাশুল নয়, বরং সরকারি শু’ল্ক আদায়ের স্বাভাবিক নিয়ম।
মূলত সরকারের শুল্ক-কর আদায়কারী সংস্থা জাতীয় রাজস্ব

বোর্ডের (এনবিআর) পক্ষে ব্যাংকগুলো পঞ্জিকাবর্ষ (জানুয়ারি-ডিসেম্বর) ধরেই আবগারি শু’ল্ক কে’টে রাখে। এরপর তা সরকারি কো’ষাগারে জমা করে। সাধারণত একজন গ্রাহকের অ্যাকাউন্টে জানুয়ারি থেকে ডিসেম্বর অবধি যদি ১ লাখ টাকার

কম টাকা থাকে, তাহলে কোনো আবগারি শুল্ক কে’টে নেওয়া হয় না। তবে ১ লাখ থেকে ৫ লাখ টাকা পর্যন্ত টাকা থাকলে ১৫০ টাকা এবং ৫ লাখ থেকে ১০ লাখ টাকা পর্যন্ত থাকলে ৫০০ টাকা আবগারি শুল্ক দিতে হয়। এ ছাড়া ১০ লাখ থেকে ১ কোটি

টাকায় ৩ হাজার টাকা; ১ কোটি টাকা থেকে ৫ কোটি টাকায় ১৫ হাজার টাকা এবং ৫ কোটি টাকার ওপরে থাকলে ৪০ হাজার টাকা আবগারি শুল্ক আরো’প হয়। প্রতিবছর সঞ্চয়ী হিসাব থেকে আবগারি শুল্ক কে’টে রাখে ব্যাংক। মূলত জানুয়ারি

থেকে ডিসেম্বর মাসের সঞ্চয়ের উপর ভি’ত্তি করে আবগারি শুল্ক কে’টে নেওয়া হয়। এনবিআর সূত্রে জানা গেছে, সর্বশেষ ২০২০-২১ অর্থবছরে প্রায় আড়াই হাজার কোটি টাকার আবগারি শু’ল্ক আদায় হয়েছে।

About Gazi

Check Also

অনির্দিষ্টকালের জন্য ঢাকা-ময়মনসিংহ সড়কে গণপরিবহন বন্ধ

এবার গাজীপুরের সালনা থেকে টঙ্গী পর্যন্ত ঢাকা-ময়মনসিংহ মহাসড়কে ধীরগতির উন্নয়ন কর্মকাণ্ডের কারণে ময়মনসিংহ অঞ্চলে আগামীকাল …

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *