Home / আবহাওয়া বার্তা / পাঁচ ফুট পুরু বরফের স্তর, শত শত পর্যটক উদ্ধার

পাঁচ ফুট পুরু বরফের স্তর, শত শত পর্যটক উদ্ধার

পাকিস্তানে নজিরবিহীন তুষারপাতের কারণে গাড়িতে ঘণ্টার পর ঘণ্টা আটকে থাকা এক পর্যটক বর্ণনা করেছেন, কীভাবে তিনি সাহায্যের জন্য অপেক্ষা করতেন। তিনি চোখের সামনে ‘মৃত্যু’ দেখেছিলেন। পাহাড়ের

চূড়ার শহর মুরিতে শীতের তুষারপাত দেখতে ছুটে আসা ওই পর্যটকের নাম সামিনা। তার মতো হাজার হাজার পর্যটক মুরিতে এসেছিলেন। তুষারপাতে সেখানে বরফের স্তর ছিল ৫ ফুট পুরু। বিবিসি। কিন্তু গত ৭ ডিসেম্বর একটি তুষারঝড় গাছপালা উপড়ে

ফেলে এবং রাজধানী ইসলামাবাদের উত্তরের শহর মুরির ভেতর ও বাইরের রাস্তা বন্ধ হয়ে যায় তুষারপাতে। প্রায় ১ হাজার যানবাহন আটকা পড়ে এবং দুটি বড় পরিবারসহ কমপক্ষে ২২ জনের মৃত্যু হয়। সামিনা বিবিসিকে জানান, আমি আমার সামনে মৃত্যু দেখতে

পাচ্ছিলাম। মনে হচ্ছিল আমাদের গাড়ির চারপাশে তুষার চূড়া তৈরি করা হয়েছিল। আমি কীসের মধ্য দিয়ে যাচ্ছিলাম তা ভাষায় ব্যাখ্যা করতে পারব না। আমরা দোয়া করছিলাম আল্লাহ যেন আমাদের সাহায্য করেন এবং আমরা যেন তুষারঝড়ে মারা না যাই।

নিকটবর্তী শহরের নাথিয়াগালির একজন কর্মকর্তা তারিক উল্লাহর মতে, তুষারঝড় মাত্র কয়েক ঘণ্টার মধ্যে ৫ ফুট উঁচু স্তর সৃষ্টি করে। বার্তা সংস্থা এএফপিকে তিনি বলেন, এটি ছিল নজিরবিহীন। প্রবল বাতাস, উপড়ে পড়া গাছ ও ভয়ঙ্কর তুষারধস ছিল। আশেপাশের লোকজন আতঙ্কিত হয়ে পড়েছিল।

সামিনাকে শেষ পর্যন্ত পরের দিন সকাল ১০টায় উদ্ধার করা হয়। পরে তিনি মুরি শহরের একটি আশ্রয়কেন্দ্রে রাত কাটান, যা সমুদ্রপৃষ্ঠ থেকে ২ হাজার ৩০০ মিটার বা ৭ হাজার ৫০০ ফুট উঁচুতে অবস্থিত। যারা মারা গেছেন, তাদের মধ্যে ১০ জন শিশু ছিল। জরুরি পরিষেবাগুলো জানিয়েছে, পাঁচ এবং আট সদস্যের দুটি পরিবারের সবার মৃত্যু হয়েছে। কর্তৃপক্ষ জানিয়েছে, ওই

আটজন লোক হিমশীতল হয়ে মারা গেছেন। শ্বাসকষ্টে তারা মারা গেছে। তবে কীভাবে এটি ঘটতে পারল তা নিয়ে প্রশ্ন উঠছে। ইসলামাবাদের একজন পর্যটক দুয়া কাশিফ আলী এএফপিকে বলেন, আমরা সরকার, গুগল, সংবাদ কিংবা আবহাওয়া অফিস থেকে কোনো ধরনের সতর্কতা পাইনি। তিনি এবং ১৩ জন তাদের

গাড়ি ছেড়ে দিয়ে প্রায় এক মাইল দূরে একটি গেস্টহাউসে আশ্রয় নেন। বিবিসির ফারহাত জাভেদ জানাচ্ছেন, মুরি শহরে প্রায় ৫ হাজার গাড়ির জন্য জায়গা রয়েছে। তবে শুক্রবার এক লাখ দর্শনার্থীদের প্রবেশের অনুমতি দেওয়া হয়েছিল। তারা গভীর তুষারপাতের মধ্যে বিশাল যানজটের শিকার হয়।

About Gazi

Check Also

৪ জেলায় বইছে শৈত্যপ্রবাহ, যে ৩ বিভাগে হতে পারে বৃষ্টি

আজ সকালে আবহাওয়া অধিদপ্তর জানিয়েছে আগামী ২৪ ঘণ্টায় রংপুর, ময়মনসিংহ ও সিলেট- এই তিন বিভাগে …

Leave a Reply

Your email address will not be published.